বিএসইসিকে ক্ষতিপূরণের দাবি নিষ্পত্তির নির্দেশ

orion-smbdনিজস্ব প্রতিবেদক :

প্লেসমেন্টের তুলনায় কম মূল্যে প্রাথমিক গণপ্রস্তাব (আইপিও) অনুমোদনে আর্থিক ক্ষতির শিকার দুই প্লেসমেন্টধারীর আবেদন নিষ্পত্তি করতে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনকে (বিএসইসি) নির্দেশ দিয়েছেন আপিল বিভাগ। সম্প্রতি প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে আপিল বিভাগের চার সদস্যের বেঞ্চ এ আদেশ দেন। এ আদেশের পরিপ্রেক্ষিতে প্লেসমেন্টধারী র্যাংগস গ্রুপের করপোরেট কমিটির দুই সদস্যের ক্ষতিপূরণের বিষয়টি নিষ্পত্তি করতে ওরিয়ন ফার্মাকে সাতদিনের সময় বেঁধে দিয়েছে বিএসইসি।

জানা গেছে, প্লেসমেন্টধারীরা ওরিয়ন ফার্মার প্রতিটি শেয়ার ১০০ টাকায় কিনলেও পরবর্তীতে আইপিওতে কোম্পানিটিকে ৬০ টাকায় প্রতিটি শেয়ার বিক্রির অনুমোদন দেয় শেয়ারবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি। এতে বিপুল পরিমাণ আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ করেন দুই প্লেসমেন্টধারী। তারা হলেন র্যাংগস গ্রুপের করপোরেট কমিটির এক্সিকিউটিভ ভাইস চেয়ারম্যান জাকিয়া রউফ চৌধুরী ও পরিচালক রোমানা রউফ চৌধুরী। লোকসান হওয়া ওই অর্থ ফেরতের বিষয়টি নিষ্পত্তি করতে বিএসইসিতে আবেদন করেন তারা। বিএসইসি তাদের আবেদন নিষ্পত্তিতে অপারগতা প্রকাশ করায় তারা ২০১৩ সালে উচ্চ আদালতে মামলা করেন।

মামলার আবেদনে বাদীরা বলেন, প্লেসমেন্টের তুলনায় কম দামে ওরিয়ন ফার্মা লিমিটেডের আইপিও অনুমোদন দেয়ায় প্রতি শেয়ারে তাদের ৪০ টাকা লোকসান হয়েছে। কোম্পানির কাছ থেকে লোকসানের এ অর্থ আদায়ে বিএসইসির শরণাপন্ন হয়ে ব্যর্থ হন তারা। তাই লোকসানের সমপরিমাণ অর্থ কিংবা শেয়ার দাবি করে আদালতে যান তারা।

মামলায় ওরিয়ন ফার্মা ছাড়াও বিএসইসি, দুই স্টক এক্সচেঞ্জসহ মোট ছয় প্রতিষ্ঠানকে বিবাদী করা হয়। মামলায় বিবাদীদের নিষ্ক্রিয়তাকে কেন অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না মর্মে রুল জারিরও আবেদন জানানো হয়। একই সঙ্গে বিলম্ব না করে বাদীর আবেদন নিষ্পত্তিতে বিএসইসিকে নির্দেশনা দেয়ারও আবেদন জানায় বাদীপক্ষ।

পরবর্তীতে উচ্চ আদালত বাদীর পক্ষে রায় দেয়। আদালতের এ আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করে ওরিয়ন ফার্মা। সম্প্রতি ওরিয়ন ফার্মার আপিল আবেদন খারিজ করে বিএসইসিকে মামলার আবেদনকারীদের ক্ষতিপূরণের বিষয়টি নিষ্পত্তি করতে নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে গঠিত চার সদস্যের আপিল বিভাগ।

আদালতের আদেশের সত্যায়িত কপি পাওয়ার পর ১৮ মে ওরিয়ন ফার্মাকে চিঠি দিয়ে এ দুই প্লেসমেন্টধারীর ক্ষতিপূরণের বিষয়টি নিষ্পত্তির নির্দেশ দেয় বিএসইসি। এজন্য ২৭ মে পর্যন্ত সময় বেঁধে দেয়া হয়। জানা গেছে, চিঠিতে উল্লেখ না থাকলেও মৌখিকভাবে আর্থিক ক্ষতিপূরণ দিতে কোম্পানিটিকে নির্দেশ দিয়েছে শেয়ারবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

এ প্রসঙ্গে বিএসইসির মুখপাত্র সাইফুর রহমান সাংবাদিকদেরকে বলেন, ওরিয়ন ফার্মাকে আদালতের আদেশ পরিপালন করতে চিঠি দেয়া হয়েছে।

এদিকে ওরিয়ন ফার্মার আইনজীবী অ্যাডভোকেট আহসানুল করিম বলেন, প্লেসমেন্ট ও আইপিওর শেয়ার দুটি ভিন্ন বিষয়। প্লেসমেন্ট কত টাকায় বিক্রি হবে, সেটি বিএসইসি ঠিক করে না। এজন্য বিএসইসির কোনো অনুমতি নেয়ারও প্রয়োজন নেই। বিএসইসি কোনোভাবেই অতিরিক্ত অর্থ ফেরত দেয়ার নির্দেশনা দিতে পারে না। আদালত নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে শুধু আবেদনটি নিষ্পত্তি করতে বলেছেন।

উল্লেখ্য, শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্তির আগেই ২০১০ সালে ওরিয়ন ফার্মা প্রাইভেট প্লেসমেন্টের মাধ্যমে ৭৫০ কোটি টাকা সংগ্রহ করে। প্লেসমেন্টে ১০ টাকা অভিহিত মূল্যের প্রতিটি শেয়ার ১০০ টাকায় (৯০ টাকা প্রিমিয়ামসহ) বিক্রি করা হয়।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এম/এইচ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *