মিউচ্যুয়াল ফান্ডের এনএভি প্রকাশ

icbনিজস্ব প্রতিবেদক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশ (আইসিবি) পরিচালিত আট মিউচুয়াল ফান্ডের নিট অ্যাসেট ভ্যালু (এনএভি) প্রকাশ করা হয়েছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

০৩ই মার্চ ২০১৫ তারিখের হিসাব অনুযায়ী ১০ টাকা ফেসভ্যালুর বিপরীতে প্রথম আইসিবি মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিটপ্রতি নিট অ্যাসেট ভ্যালু ক্রয় মূল্য অনুসারে ২৩০.৯৪ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ১৬৩৮.৫৩ টাকা, দ্বিতীয় আইসিবির এনএভি ক্রয় মূল্য অনুসারে ১০২.১৭ টাকা এবং বাজার মূল্য অনুসারে ২৯৫.৪৬ টাকা, তৃতীয়টির ক্রয় মূল্য অনুসারে ৭১.২৫ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ৩৫৭.২৮ টাকা।

এছাড়া চতুর্থটির ক্রয় মূল্য অনুসারে ৭৪.৭০ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ২৮৬.৩৪ টাকা, পঞ্চমটির ক্রয় মূল্য অনুসারে ৫৯.৩০ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ২৪৪.১০ টাকা, ষষ্ঠটির ক্রয় মূল্য অনুসারে ২৭.২০ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ৫৯.০৬ টাকা, সপ্তমটির ক্রয় মূল্য অনুসারে ৩৯.০৩ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ১০৬.১৫ টাকা এবং অষ্টম আইসিবি মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিটপ্রতি নিট অ্যাসেট ভ্যালু (এনএভি) ক্রয় মূল্য অনুসারে ৩৩.৫৫ টাকা আর বাজার মূল্য অনুসারে ৭০.৬৯ টাকা।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এএআর

  1. শাহজিবাজার পাওয়ার
  2. ইফাদ অটোস
  3. শাশা ডেনিমস
  4. লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট
  5. সামিট অ্যালায়েন্স পোর্ট
  6. আইডিএলসি
  7. ওয়েষ্টার্ণ মেরিন
  8. সাইফ পাওয়ার
  9. ন্যাশনাল পলিমার
  10. বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবল।

শেয়ারবাজারে সূচকের বড় ধরনের পতন

indexনিজস্ব প্রতিবেদক :

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রবিবারে দেশের উভয় শেয়ারবাজারে সূচকের বড় ধরনের পতন হয়েছে। এদিন লেনদেনের পরিমাণও কমেছে।

এদনি প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের ডিএসইএক্স’র পতন হয়েছে ৩৯ পয়েন্টের। দিনশেষে সূচক কমে দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ৬২৪ পয়েন্টে । দিনভর ২৪৯ কোটি টাকার লেনদেন হয়েছে।

এদিকে সূচকের পতনের সাথে বাজারে লেনদেনও কিছুটা অবনতি হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার লেনদেন হয়েছে ২৬৬ কোটি ৩০ লাখ।

ডিএসইতে লেনদেনে হওয়া ৩০৪টি কোম্পানি ও মিউচুয়ালফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে মাত্র ১০০টির, কমেছে ১৫৮টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৬টির দর।

লেনদেনের শীর্ষস্থান দখল করে নিয়েছে শাহজিবাজার পাওয়ার, ইফাদ অটোস, শাশা ডেনিমস, লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট, সামিট অ্যালায়েন্স পোর্ট, আইডিএলসি, ওয়েষ্টার্ণ মেরিন, সাইফ পাওয়ার, ন্যাশনাল পলিমার ও বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবল কোম্পানি।

অপরদিকে সিএসইতেও সূচক পতন হয়েছে। দিনশেষে সিএসইএক্স ৪২ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৬২৩ পয়েন্টে। তবে সূচক কমলেও বেড়েছে লেনদেনের পরিমাণ। গত দিবসে লেনদেন হয়েছিল ৩১ কোটি ১৮ লাখ টাকার। আর আজ লেনদেন হয়েছে ২৩ কোটি ৬৯ লাখ টাকা।

এদিন লেনদেন হওয়া ২২৩টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৯৭টির, কমেছে ১০২টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৪টির দর।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এইচ

আনোয়ার গ্যালভের বাড়বে উৎপাদন ক্ষমতা

Anwar-Galva-smbdনিজস্ব প্রতিবেদক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত প্রকৌশল খাতের কোম্পানি আনোয়ার গ্যালভানাইজিং উৎপাদন ক্ষমতা বাড়াতে নতুন প্রযুক্তি সংযোজন করবে। আগামী জুন মাসের মধ্যে নতুন প্রযুক্তি আমদানি করবে কোম্পানিটি। এর ফলে উৎপাদনক্ষমতা দ্বিগুণ বাড়বে বলে কোম্পানির পক্ষ থেকে আশাবাদ ব্যক্ত করা হয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

কোম্পানির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, নতুন প্রযুক্তি সংযোজনের ফলে ব্যবহারের অনুপযুক্ত হয়ে পড়া ৮০ শতাংশই আবার ব্যবহার সম্ভব হবে।

জানা গেছে, এই ফার্নেস প্রযুক্তির জন্য ব্যয় হবে প্রায় ৬২ লাখ টাকা। সাম্প্রতিক সময়ে কোম্পানির বছরে প্রায় এক হাজার ১৬০ মেট্রিক টন উৎপাদনক্ষমতা রয়েছে। আর নতুন প্রযুক্তি ব্যবহারে এই উৎপাদন এক হাজার ৮৮০ মেট্রিক টন পর্যন্ত বাড়বে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এএআর

ইউনাইটেড ফাইনান্সের ১৫% লভ্যাংশ ঘোষণা

united-finance-smbdস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত নন-ব্যাংকিং খাতের প্রতিষ্ঠান ইউনাইটেড ফাইনান্স লিমিটেড বিনিয়োগকারীদের জন্য ৫ শতাংশ নগদ এবং ১০ শতাংশ বোনাস শেয়ার লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সম্প্রতি ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সালের জন্য এ লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার প্রতিষ্ঠানটির পরিচালনা পর্ষদের বৈঠকে এই লভ্যাংশ অনুমোদন দেওয়া হয়।

এ বছরে কোম্পানিটি শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস)হয়েছে ২.৩১ টাকা। শেয়ার প্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৭.২৯ টাকায়।

আগামী ২৩ এপ্রিল প্রতষ্ঠিানটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১৮ মার্চ।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এএআর

প্রগতি লাইফের দর বাড়ার তথ্য নেই

progotiস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত বিমা খাতের কোম্পানি প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেডের সাম্প্রতিক সময়ে শেয়ার দর বাড়ার পেছনে কোনো মূল্যসংবেদনশীল তথ্য নেই বলে জানিয়েছে। দর বাড়ার কারণ জানতে চাইলে কোম্পানিটির পক্ষ থেকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জকে (ডিএসই) এ কথা জানানো হয়েছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে, গত মাসের ২৬ তারিখ থেকে শেয়ারটির দর বাড়া শুরু হয়েছে। ৫ মার্চ পর্যন্ত দরবৃদ্ধি অব্যহত ছিল। এসময় শেয়ারটির দর প্রায় ১৬.৮০ টাকা বেড়ে ৯৭.৫০ (প্রায়) টাকা থেকে ১১৪.৩০ টাকায় দাঁড়িয়েছে। এরমধ্যে ৩ ও ৫ মার্চ এ কোম্পানির শেয়ারদর অস্বাভাবিকহার বেড়েছে। ২২ মার্চ শেয়ারটির দর প্রায় ৭ টাকা ও ৫ মার্চ প্রায় ৪ টাকা বেড়েছে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/