বাজারবান্ধব মুদ্রানীতির দাবি বিনিয়োগকারীদের

oikko porisodনিজস্ব প্রতিবেদক :

শেয়ারবাজারের স্থিতিশীলতা আনতে আসন্ন মু্দ্রানীতি বাজারবান্ধব করার দাবি জানিয়েছে বিনিয়োগকারীদের সংগঠন সম্মিলিত জাতীয় ঐক্য। বাজার উন্নয়নে আরও দাবি নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) কাছে উত্থাপন করেছে সংগঠনটি।

বাংলাদেশ পুঁজিবাজার বিনিয়োগকারী সম্মিলিত জাতীয় ঐক্যের বুধবার বিকেলে এ সংক্রান্ত একটি স্মারকলিপি বিএসইসিতে জমা দিয়েছেন।

স্মারকলিপিতে উল্লেখ রয়েছে, বর্তমান বাজারের প্রেক্ষাপটে ক্যাশ রিজার্ভ রেশিও (সিআরআর) ও স্টাটুটরি লিকুইডিটি রেশিও (এসএলআর) এর হার কমাতে হবে। এ ছাড়া ব্যাংকগুলোর মোট দায়ের কমপক্ষে ১০ শতাংশ বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত নিতে হবে।

ব্যাংক, বীমা ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর বিনিয়োগ সংক্রান্ত তথ্য মাসিক ভিত্তিতে মনিটরিং না করে বার্ষিক ভিত্তিতে করতে হবে। পাশাপাশি সিঙ্গেল পার্টি এক্সপোজার লিমিট বা একক গ্রাহক ঋণসীমা সমন্বয়ের সময় সীমা আরও পাঁচ বছর বাড়াতে হবে।

ঋণাত্মক হিসাবগুলোকে পুনরায় লেনেদেনযোগ্য করার অনুমোদন দিতে হবে। এ ছাড়া ৫ শতাংশ সুদে আগামী পাঁচ বছর মার্জিন ঋণ দিতে হবে।

ভাল লভ্যাংশ দেওয়া কোম্পানিগুলোকে ট্যাক্স রিবেটের আওতায় আনতে ব্যবস্থা নিতে হবে। আর লভ্যাংশ না দেওয়া কোম্পানিগুলোর ‍ওপর ট্যাক্স আরোপের ব্যবস্থা নিতে হবে।

বাংলাদেশ ব্যাংক, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) ও ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশের (আইসিবি) মাধ্যমে শেয়ারবাজার প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজন করতে হবে।

শেয়ারবাজারের বর্তমান পরিস্থিতিতে মেয়াদী মিউচ্যুয়াল ফান্ডগুলো বন্ধ না করে স্বল্প সময়ের জন্য বর্ধিত করা যেতে পারে বলেও সম্মিলিত জাতীয় ঐক্যের পক্ষ থেকে সুপারিশ করা হয়েছে।

স্মারকলিপিটি প্রদানের সময় সংগঠনের সভাপতি রুহুল আমিন আকন্দসহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *