বৃহস্পতিবার ৪ কোম্পানির লেনদেন বন্ধ

trade suspended logo mmস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত চার কোম্পানির লেনদেন রেকর্ড ডেটের কারণে ১৫ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার লেনদেন বন্ধ থাকবে। ডিএসই’র ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশিত হয়।

কোম্পানিগুলো হচ্ছে- আইডিএলসি ফিন্যান্স, মিথুন নিটিং, ফ্যামিলি টেক্স ও যমুনা অয়েল।

এর আগে কোম্পানিগুলোর শেয়ারের লেনদেন স্পট মার্কেটে এবং ব্লক/অডলটে শুরু করেছিল; যা আজকে বুধবার সম্পন্ন হবে । আগামী ১৮ ডিসেম্বর থেকে কোম্পানিগুলো আবার স্বাভাবিক লেনদেন শুরু করবে শেয়ারবাজারে ।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এসএম

পতনের শীর্ষে স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্স

looserস্টকমার্কেট ডেস্ক :

ডিএসইতে বুধবারের লেনদেনে পতনের শীর্ষে উঠে এসেছে স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্স। এ দিন কোম্পানির শেয়ারের দর কমেছে ৪.৬৬ শতাংশ। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

গত সোমবার স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্সের শেয়ারের সর্বশেষ দর ছিল ১৯.৩ টাকা। বুধবার লেনদেন শেষে কোম্পানির শেয়ারের সর্বশেষ দর দাঁড়িয়েছে ১৮.৪ টাকায়। এদিন কোম্পানির শেয়ার ১৮.১ টাকা থেকে ১৯ টাকায় লেনদেন হয়।

পতনের শীর্ষে  উঠে আসা অপর কোম্পানি গুলো হল – মডার্ণ ডাইংয়ের ৪.১৩ শতাংশ, দুলামিয়া কটনের ৪ শতাংশ, ফেডারেল ইন্স্যুরেন্সের ৩.৭৬ শতাংশ, তসরিফা ইন্ডাষ্ট্রিজের ২.৯৭ শতাংশ, লিবরা ইনফিউশনের ২.৮৪ শতাংশ, হাক্কানি পাল্পের ২.৭১ শতাংশ, ফরচুন সুজের ২.৬৬ শতাংশ, ন্যাশনাল টিউবসের ২.৬০ শতাংশ ও মন্নু স্টাফলার্সের ২.৪২ শতাংশ দর কমেছে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এসএম

দর বাড়ার শীর্ষে বাংলাদেশ বিল্ডিং সিষ্টেমস

11স্টকমার্কেট ডেস্ক :

ডিএসইতে বুধবারের লেনদেনে দর বাড়ার শীর্ষে উঠে এসেছে বাংলাদেশ বিল্ডিং সিষ্টেমস। এদিন কোম্পানিটির শেয়ার দর বেড়েছে ১০ শতাংশ। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

গত সোমবার বাংলাদেশ বিল্ডিং সিষ্টেমসের শেয়ারের সর্বশেষ দর ছিল ৪৫ টাকা। বুধবার লেনদেন শেষে কোম্পানির শেয়ারের সর্বশেষ দর দাঁড়িয়েছে ৪৯.৫ টাকায়। এ দিন কোম্পানির শেয়ার ৪৫.৫০ টাকা থেকে ৪৯.৫০ টাকায় লেনদেন হয়।

দর বাড়ার শীর্ষে অপর কোম্পানি গুলো হল – বেঙ্গল উইন্ডসর থার্মো প্লাস্টিকের ৯.৮৪ শতাংশ, গোল্ডেন হার্ভেষ্ট অ্যাগ্রো ইন্ডাষ্ট্রিজের ৭.৬৬ শতাংশ, মন্নু সিরামিকের ৬.৮৭ শতাংশ, ইউনিয়ন ক্যাপিটালের ৬.৮০ শতাংশ, সিঅ্যান্ডএ টেক্সটাইলের ৬.৫৯ শতাংশ, কেপিসিএল’র ৬.৩৩ শতাংশ, ন্যাশনাল হাউজিং ফাইন্যান্সের ৬.১০ শতাংশ, প্রাইম টেক্সটাইলের ৬.০৭ শতাংশ ও বাংলাদেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্সের ৫.৯৫ শতাংশ দর বেড়েছে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এসএম

শিগগিরই ২৬টি সরকারি প্রতিষ্ঠান শেয়ারবাজারে আসছে : অর্থমন্ত্রী

muhitস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শিগগিরই ২৬টি সরকারি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারবাজারে ছাড়া হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। তিনি বলেন, শেয়ারবাজার সংস্কারের সময় সরকারি কোম্পানির শেয়ার বাজারে চাড়া সম্ভব হয়নি। তবে সম্প্রতি আমরা একটা বৈঠক করেছি, কাগজপত্র তৈরি হচ্ছে। শিগগিরই কোম্পানির শেয়ারগুলো বাজারে ছাড়া হবে।

বুধবার দুপুরে সচিবালয়ে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ ব্রোকারেজ অ্যাসোসিয়েশনের (ডিবিএ) প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠক শেষে অর্থমন্ত্রী সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান। ডিবিএ’র সভাপতি আহমেদ রশিদ লালীর নেতৃত্বে ১৫ সদস্যের একটি প্রতিনিধি অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। এ সময় ডিবিএ’র সহ-সভাপতি মোশতাক আহমেদ সাদেক, খুজিস্তা নূর-ই-নেহরিনসহ অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

জানা যায়, বৈঠকে আহমেদ রশিদ লালী একটি নেগেটিভ ইক্যুইটি ফান্ড গঠনের দাবি জানান। জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, এ জন্য সরাসরি কোনও টাকা দেওয়া হবে না।

পরে আহমেদ রশিদ লালী শেয়ারবাজারে বন্ড ছেড়ে টাকা সংগ্রহের প্রস্তাব দিলে অর্থমন্ত্রী বলেন, পরে এসব বিষয়ে আলোচনা করা হবে।

এছাড়াও আহমেদ রশিদ লালী প্রথমবারের মতো ২০ জন সফল ব্রোকার ও ২০ জন ইস্যুয়ারকে সম্মাননা দেওয়া হবে বলে জানান। জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, এটা একটা ভালো উদ্যোগ। এতে বিনিয়োগকারীদের মাঝে আস্থা বাড়বে এবং কোম্পানি সম্পর্কে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে ভালো ধারণা জন্মাবে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/জেডকে/বি

বিএনআইসির প্রধান কার্যালয় পরিবর্তন

bni-smbdস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত বীমা খাতের কোম্পানি বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি (বিএনআইসি)লিমিটেডের প্রধান কার্যালয়ের ঠিকানা পরিবর্তন করা হয়েছে। বুধবার সিএসই’র ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশিত হয়।

সূত্র জানায়, বিমাটির প্রধান অফিস রাজধানীর গুলশান এক নম্বরে রশিদ টাওয়ার নামে এক ভবনে স্থানান্তর করা হয়েছে।

গত ১৫ মে হতে এই অফিস পরিবর্তন করেছে বিমাটি। এর আগে কোম্পানির প্রধান কার্যালয় ছিল মতিঝিলের দিলকুশায় ৬৮ নম্বর ডাব্লিউ ডাব্লিউ টাওয়ার নামে ভবনে।

এখন থেকে সকল বিনিয়োগকারী ও স্টেক হোল্ডারদের নতুন অফিসে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/জেডকে/বি

৪২ টাকার শেয়ার ১২ দিনে বেড়ে ৬৪ টাকা

RSRMস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত প্রকৌশল খাতের কোম্পানি রতনপুর স্টিল মিলস লিমিটেডের সাম্প্রতিক সময়ে শেয়ার দর বাড়ার পেছনে কোনো মূল্য সংবেদনশীল তথ্য নেই বলে জানিয়েছে। দর বাড়ার কারণ জানতে চাইলে কোম্পানিটির পক্ষ থেকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জকে (ডিএসই) এ কথা জানানো হয়েছে।

জানা যায়, গত ২৭ নভেম্বর শেয়ার দর ছিল ৪২.৮০ টাকা। আজ ১৪ ডিসেম্বর সর্বশেষ তা ৬৪.১০ টাকায় লেনদেন হয়েছে।
এই ১২ কার্যদিবসে শেয়ারটির দর বেড়েছে প্রায় ২২ টাকার উপরে।

কোম্পানিটির শেয়ারের এ দর বাড়াকে অস্বাভাবিক বলে মনে করছে ডিএসই। তবে দর বাড়ার পেছনে মূল্য সংবেদনশীল কোন তথ্য কি তা জানতে চায় ডিএসই।

এ সময় রতনপুর স্টিল মিলসের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সম্প্রতি শেয়ারটির দর বৃদ্ধির পেছনে মূল্যসংবেদনশীল অপ্রকাশিত কোন তথ্য তাদের কাছে নেই।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এম/বি

  1. বিবিএস
  2. লাফার্জ সুরমা
  3. একটিভ ফাইনস
  4. এ্যাপোলো ইস্পাত
  5. রতনপুর স্টিলস
  6. ইফাদ অটোস
  7. এএফসি এগ্রো
  8. এমজেএলবিডি
  9. বিডি থাই
  10. সাপোর্ট লিমিটেড

ডিএসইতে ১০৬৪ ও সিএসইতে ৬৬ কোটি টাকা লেনদেন

DSE_CSE-smbdনিজস্ব প্রতিবেদক :

দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) দিনশেষে লেনদেনের পরিমাণ ১০৬৪ কোটি টাকা দাঁড়িয়েছে। এদিন সেখানে আগের দিনের চেয়ে লেনদেন ও মূল্য সূচক বেড়েছে। অন্যদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন হয়েছে ৬৬ কোটি টাকার। ডিএসই ও সিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বুধবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ১০৬৪ কোটি ৬৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। গত সোমবার সেখানে ৭৪১ কোটি ২৩ লাখ টাকার লেনদেন হয়।

এদিন ডিএসইতে ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ৩৭ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ৪৯০৬ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ১১ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১১৬৯ পয়েন্টে। ডিএসই-৩০ সূচক ১১ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১৭৯৭ পয়েন্টে।

এদিন দিনভর লেনদেন হওয়া ৩২৩ টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৭৯ টির, কমেছে ১০০ টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৪ টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের শেয়ার দর।

এইদিন ডিএসইতে টাকার অঙ্কে লেনদেনে শীর্ষ কোম্পানিগুলো হলো – বিবিএস, লাফার্জ সুরমা, একটিভ ফাইনস, এ্যাপোলো ইস্পাত, রতনপুর স্টিলস,  ইফাদ অটোস, এএফসি এগ্রো, এমজেএলবিডি, বিডি থাই ও সাপোর্ট লিমিটেড।

এদিকে বুধবার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ৬৬ কোটি ৯৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। গত সোমবার সেখানে ৪৫ কোটি ৬৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।

এদিন সিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে ছিল লাফার্জ সুরমা ও বিবিএস লিমিটেড।

এদিন সিএসই সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১১২ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৫ হাজার ০৮১ পয়েন্টে। সিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৫৫ টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের শেয়ার। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৩৫ টির, কমেছে ৮৯ টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩১ টির।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এসএম

১২ দিবসে গোল্ডেন এগ্রোর দর বেড়েছে ১৩ টাকা

goldenস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত খাদ্য ও আনুসাঙ্গিক খাতের কোম্পানি গোল্ডেন হার্ভেষ্ট এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের সাম্প্রতিক সময়ে শেয়ার দর বাড়ার পেছনে কোনো মূল্য সংবেদনশীল তথ্য নেই বলে জানিয়েছে। দর বাড়ার কারণ জানতে চাইলে কোম্পানিটির পক্ষ থেকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জকে (ডিএসই) এ কথা জানানো হয়েছে।

জানা যায়, গত ২৭ নভেম্বর শেয়ার দর ছিল ৩৬.৭০ টাকা। গত ১২ ডিসেম্বর সর্বশেষ তা ৪৯.৬০ টাকায় লেনদেন হয়েছে।
এই ১২ কার্যদিবসে শেয়ারটির দর বেড়েছে প্রায় ১৩ টাকা।

কোম্পানিটির শেয়ারের এ দর বাড়াকে অস্বাভাবিক বলে মনে করছে ডিএসই। তবে দর বাড়ার পেছনে মূল্য সংবেদনশীল কোন তথ্য কি তা জানতে চায় ডিএসই।

এ সময় গোল্ডেন হার্ভেষ্ট এগ্রোর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সম্প্রতি শেয়ারটির দর বৃদ্ধির পেছনে মূল্যসংবেদনশীল অপ্রকাশিত কোন তথ্য তাদের কাছে নেই।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এম/বি

ঠেকানো যাচ্ছে না এইচ.আর. টেক্সটাইলের দর বৃদ্ধি

hr texস্টকমার্কেট ডেস্ক :

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত পোশাকশিল্প খাতের এইচ.আর. টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের শেয়ার দর অস্বাভাবিকভাবে বাড়ার পিছনে কোনো মূল্য সংবেদনশীল তথ্য নেই বলে জানিয়েছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। বুধবার ডিএসইর ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।

গত ৭ ডিসেম্বর অস্বাভাবিকভাবে দর বাড়ার কারণ নেই বলে এইচ.আর. টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের কর্তৃপক্ষ সিএসইকে জানিয়েছেন। যা সিএসইর’র ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়।

এরপরও কোম্পানির শেয়ারের দর কমছে না। পরের দুই দিন ৮ ও ১১ ডিসেম্বর স্থিতিশীল থাকলেও সর্বশেষ দিনে ৩০ টাকার উপরে লেনদেন হয়েছে। মূল্য বাড়ার কারণ না থাকার তথ্যটি প্রকাশ করেও ঠেকানো যাচ্ছে না দর বৃদ্ধি।

গত মাস বা ৮ নভেম্বর এইচ.আর.টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের শেয়ার দর ছিল ২২.৪০ টাকা। গত ৬ ডিসেম্বর কোম্পানিটির শেয়ার ২৭.৭০ টাকায় দাঁড়ায়।

এই দর বাড়াকে অস্বাভাবিক বলে মনে করছে সিএসই। দর বাড়ার কারণ জানতে চাইলে কোম্পানির পক্ষ থেকে জানানো হয়, এইচ.আর. টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের দর সংবেদনশীল কোনো অপ্রকাশিত তথ্য নেই।

স্টকমার্কেটবিডি.কম/এমএ